সীমান্তে নেপালি পুলিশের গুলিতে ভারতীয় নাগরিকের মৃত্যু

প্রকাশিত: ১:৫৭ অপরাহ্ণ, জুন ১৩, ২০২০
গুলিবিদ্ধ ভারতীয় নাগরিক – ছবি : সংগৃহীত

নেপালের নয়া মানচিত্র প্রকাশ নিয়ে ইতোমধ্যেই যথেষ্ট অশান্ত ভারত-নেপাল সম্পর্ক। তার মধ্যে নয়া ইন্ধন। সীমান্তে গুলিতে এক ভারতীয় নিহত ও চারজন আহত হয়েছেন। অভিযোগের তীর নেপাল পুলিশের দিকে। বিহারের সিতামারহি জেলার ঘটনা এটি।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, ঘটনাস্থলেই মারা যান বছর ২৫-এর বিকাশ কুমার রাই। চাষের কাজ করতে গিয়ে গুলির আঘাতে আহত হয়েছেন উদয় ঠাকুর ও উমেশ রাম নামের দুই ব্যক্তি। এদের সিতামারথি সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে চিকিত্সার জন্য। লগন রাই বলে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে নেপাল পুলিশ।

পুলিশ সূত্রের খবর, ভারত ও নেপাল পুলিশের মধ্যে বিভেদই এই ঘটনার নেপথ্যে। লালবন্দি-জানকি নগর সীমান্তে এই ঘটনা হয়েছে। মৃতের বাবা নাগেশ্বর জানিয়েছেন যে তার ছেলে যেখানে কাজ করত, সেটা নেপালের অংশ। এসএসবি ডিজি জানিয়েছেন যে ঘটনাটি নেপালের সীমান্তে অনেকটা ভিতরে হয়েছে। পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক।

অতিরিক্ত ডিজি জিতেন্দ্র কুমার জানিয়েছেন যে ঘটনায় এক ভারতীয় নিহত হয়েছেন ও দুইজন আহত। তবে যেখানে এই গুলি চলেছে, সেটা নেপালের অন্তর্গত বলে পুলিশ কর্তা জানিয়েছেন। তিনি এটাও বলেছেন যে এসপি ও জেলাশাসক ঘটনাস্থলে যাচ্ছেন।

ভারতের সঙ্গে ১৮৫০ কিলোমিটারের খোলা সীমান্ত আছে নেপালের। দুই দেশের মানুষরাই সীমান্ত পেরিয়ে একে অপরের সঙ্গে দেখা করেন। করোনার জেরে মার্চের ২২ তারিখ সীমান্ত সিল করে দেয় নেপাল। গত ১৭ মে ভারতীয়দের সীমান্ত পেরিয়ে নেপালে প্রবেশ আটকাতে আকাশে গুলি চালিয়েছিল ওই দেশের পুলিশ। তবে তারাও চাষী ছিলেন কিনা, সেটা জানা যায়নি। হিন্দুস্থান টাইমস