সাহেদের গ্রেপ্তার সরকারের কঠোর অবস্থানের প্রমাণ: সেতুমন্ত্রী

প্রকাশিত: ৫:০৯ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০২০
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ফাইল ছবি

অনিয়ম-দুর্নীতির বিরুদ্ধে শেখ হাসিনা সরকারের অবস্থান স্পষ্ট ও কঠোর জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন- ‘রিজেন্ট হাসপাতাল ও জেকেজির কর্তাব্যক্তিদের গ্রেপ্তার প্রমাণ করে অনিয়মের বিরুদ্ধে সরকার কঠোর অবস্থানে রয়েছে।’

আজ বুধবার সচিবালয়ে নিজ কার্যালয়ে বাংলাদেশে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত ইতো নাওকির নেতৃত্বে প্রতিনিধিদলের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে ব্রিফিংয়ে সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী এ কথা বলেন।

পলাতক সাহেদকে গ্রেপ্তারেরে সফল অভিযান পরিচালনার জন্য র‌্যাবকে অভিনন্দন জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন- ‘বিভিন্ন খাতে অনিয়মের বিরুদ্ধে সরকারের চলমান কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। যারা দুর্নীতি অনিয়মের সঙ্গে যুক্ত তাদের সতর্ক হওয়া উচিত।’

‘মুখোশের আড়ালে যতই মুখ লুকিয়ে রাখুক, কোনো অপরাধীই অপরাধ করে ছাড় পাবে না, শেষ পর্যন্ত ধরা পড়তেই হবে। অপরাধীর কোনো দলীয় পরিচয় নেই। দুর্বৃত্তের কোনো দল নেই।’

দেশের বন্যা পরিস্থিতি ক্রমশ অবনতির দিকে জানিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন- ‘২০টি জেলায় বন্যা ছড়িয়ে পড়েছে। এরইমধ্যে উত্তরাঞ্চল থেকে বন্যার পানি মধ্যাঞ্চলকে প্লাবিত করছে। এ অবস্থায় পানিবন্দি তথা বন্যার্ত মানুষের পাশে দাঁড়াতে এবং মানবিক সহায়তা প্রদানে প্রধানমন্ত্রী দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়কে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিয়েছেন।’

ঈদুল আজহায় সংক্রমণের ঝুঁকি অত্যন্ত বেশি বলে বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন- এমনটা উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন- ‘কোরবানির পশুরহাট এবং অন্যান্য জনসমাগম এড়িয়ে এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলে সংক্রমণের ঝুঁকি কমাতে হবে। মাস্ক পরিধান ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা বাধ্যতামূলক করতে হবে। তা না হলে, ক্ষণিকের অবহেলা কিংবা শৈথিল্য ঈদের সার্বজনীন আনন্দ সার্বজনীন বিষাদে রূপ নিতে পারে।’

জাপানের রাষ্ট্রদূতের নেতৃত্বে প্রতিনিধিদলকে ধন্যবাদ জানিয়ে মন্ত্রী বলেন- জাপান বাংলাদেশের পরীক্ষিত বন্ধু এবং অন্যতম প্রধান উন্নয়ন সহযোগী। দেশের সড়ক পরিবহণ খাতে মেট্রোরেলসহ বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প জাপানের অর্থায়নে বাস্তবায়িত হচ্ছে। চলমান প্রকল্পসমূহের অগ্রগতি নিয়ে শিগগিরই একটি সমন্বয় সভা আয়োজন করা হবে বলে মন্ত্রী এ সময় জানান।

প্রতিনিধিদলে জাপানের আন্তর্জাতিক উন্নয়ন সহযোগী সংস্থা জাইকার বাংলাদেশ অফিসের প্রধান হায়াকায়া উহো এবং বাংলাদেশস্থ জাপান দূতাবাসের দ্বিতীয় সচিব তাকাশি শিরাই উপস্থিত ছিলেন।