সরকার জনগণের পাশে আছে: কাদের

প্রকাশিত: ৩:২১ অপরাহ্ণ, জুন ৩, ২০২০

সচেতন না হলে সরকার কঠোর হতে বাধ্য হবে

আজ সকালে মেট্রোরেল প্রকল্পের কর্মকর্তাদের সাথে ভিডিও কনফারেন্সিং এ যুক্ত হয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, সরকার জীবন জীবিকার কথা ভেবে সাধারণ ছুটি বাতিল করেছে। যদি স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষিত হয়, তবে সরকার দেশের কল্যাণে আরও কঠোর হতে বাধ্য হবে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সকলকে আবারও সচেতনতার প্রাচীর গড়ে তোলার আহবান জানিয়েছেন তিনি।

সরকার করোনা সংক্রমণ রোধে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে এবং করছে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, সরকার জনগণের পাশে আছে।

ক্রমঅবনতিশীল এ পরিস্থিতিতে সরকার সংক্রমিত এলাকা ও নানান দিক বিবেচনায় নিয়ে এলাকাভিত্তিক বা জোনে বিভক্ত করার বিষয়টি ভাবছে।

গণপরিবহনে অতিরিক্ত ভাড়া শাস্তিযোগ্য অপরাধ, এ বিষয়ে মালিক-শ্রমিকদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, অতিরিক্ত ভাড়া আদায়কারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বিআরটিএসহ সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

করোনা সংকট সমাধানে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের বিরোধীদলসমূহ সরকারকে সহায়তা করতে নানামুখী উদ্যোগ গ্রহণ করেছে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি এ ক্ষেত্রে তা না করে সার্কাসের হাতির মতো সমালোচনার বৃত্তেই আবর্তিত হয়ে আছে। এমন সঙ্কটে সরকার নিরলসভাবে কাজ করছে।

তিনি স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করার নির্দেশ দিয়ে বলেন, অঞ্চলভিত্তিক তদারকির মাধ্যমে সংক্রমণ রোধের পাশাপাশি স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতকরণেও ভূমিকা রাখতে হবে। অসহায় দুস্থ মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণে দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে।

সূত্র কৃতজ্ঞতা- গণমাধ্যম