রিজেন্ট নিয়ে তিনদিনের মধ্যে ব্যাখ্যা দেবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

প্রকাশিত: ৫:২৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৩, ২০২০

করোনাভাইরাস পরীক্ষা ও আক্রান্তদের চিকিৎসা করাতে রিজেন্ট হাসপাতালকে কেনো অনুমতি দেয়া হয়েছিলো, এ বিষয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের চাওয়া ব্যাখ্যা মন্ত্রণালয়েই দেয়া হবে। গণমাধ্যমকে এ কথা জানিয়েছেন- স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আবুল কালাম আজাদ। বললেন- তিনদিনের মধ্যেই এই ব্যাখ্যা দেয়া হবে।

করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার জন্য ২১শে মার্চ রিজেন্ট হাসপাতালের সঙ্গে চুক্তি করে স্বাস্থ্য মন্ত্রাণালয়। ১২ই মে সরকারের পূর্ণ সহযোগিতা পাওয়ার পর ওই হাসপাতালে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেয়া শুরু হয়।

করোনার নমুনা সংগ্রহ করলেও পরীক্ষা হয় নি রিজেন্টের ল্যাবে। মনগড়া প্রায় ৬ হাজার ভুয়া রিপোর্ট দিয়ে ৩ কোটির বেশি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে তারা। এমন অভিযোগ আমলে নিয়ে ৬ই জুলাই অভিযান চালিয়ে মেয়াদোত্তীর্ণ লাইসেন্স নিয়ে চলতে থাকা উত্তরার ওই হাসপাতালটি সিলগালা করে দেয় র‌্যাব।

কীভাবে অনুমোদন পেলো রিজেন্ট হাসপাতাল? এ প্রশ্ন উঠলে তা নিয়ে বিভিন্ন বক্তব্য দেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আবুল কালাম আজাদ। তিনি বলেন- স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশেই অনুমোদন দেয়া হয়। এর আগে রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যানের সঙ্গে তার পরিচয় ছিলো না।

রবিবার (১২ জুলাই) ওই বক্তব্যের ব্যাখ্যা চেয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালককে চিঠি দেয় মন্ত্রণালয়। সোমবার (১৩ জুলাই) বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে চাইলে, মহাপরিচালক জানান তিনি কোনো কথা বলবেন না। পরে তার দপ্তরে মন্ত্রণালয়ের চিঠি নিয়ে সাংবাদিকরা আবারও জানতে চাইলে বলেন- ব্যাখ্যা প্রস্তুত রয়েছে যথাসময়ে পাঠানো হবে।

ছয় বছর ধরে লাইসেন্স নবায়ন করে না- জেনেও করোনা চিকিৎসায় রিজেন্ট হাসপাতালের সঙ্গে চুক্তি করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।