ভূমধ্যসাগরে বাংলাদেশিসহ ৩৯৪ অভিবাসনপ্রত্যাশী উদ্ধার

প্রকাশিত: ৫:৫০ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২, ২০২১
প্রতীকী ছবি

ভূমধ্যসাগরে অতিরিক্ত যাত্রীবোঝাই একটি কাঠের নৌকা থেকে বাংলাদেশিসহ ৩৯৪ জন অভিবাসনপ্রত্যাশীকে উদ্ধার করেছে দুটি উদ্ধারকারী জাহাজ। এসব অভিবাসনপ্রত্যাশী প্রধানত পুরুষ এবং তারা বাংলাদেশ, মরক্কো, মিশর ও সিরিয়া থেকে আগত।

রোববার রাতে তিউনিশিয়া উপকূলে প্রায় ছয় ঘণ্টা ধরে চালানো অভিযানে তাদের উদ্ধার করা হয় বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্সের একজন প্রত্যক্ষদর্শী সাংবাদিক জানিয়েছেন।

উত্তর আফ্রিকার উপকূল থেকে ৬৮ কিলোমিটার দূরে তিউনিশিয়ার জলসীমায় তাদের উদ্ধার করে জার্মানি ও ফ্রান্সের এনজিওর জাহাজ সি-ওয়াচ থ্রি ও ওশেন ভাইকিং।

অভিযানে নেতৃত্ব দেওয়া সি-ওয়াচ থ্রি উদ্ধার পাওয়াদের ১৪১ জনকে তুলে নেয় আর বাকি ২৫৩ জনকে নেয় ওশেন ভাইকিং।

কাঠের নৌকাটিতে যে অভিবাসনপ্রত্যাশীরা ছিলেন তাদের মধ্যে কারও মৃত্যু হয়েছে কিনা বা কেউ আহত হয়েছেন কিনা তা পরিষ্কার ছিল না বলে রয়টার্স জানিয়েছে। তারা নৌকাটির পাটাতনে ও কিনারে ঠাসাঠাসি করে বসেছিলেন।

রয়টার্সের প্রত্যক্ষদর্শী সাংবাদিক জানিয়েছেন, নৌকাটিতে পানি উঠছিল আর এর ইঞ্জিন কাজ করছিল না। উদ্ধার অভিযানের সময় অনেক অভিবাসনপ্রত্যাশী নৌকাটি থেকে লাফিয়ে পড়ে সি-ওয়াচ থ্রি জাহাজের দিকে সাঁতরে যাওয়ার চেষ্টা করেন।

সম্প্রতি আবহাওয়া ভালো থাকায় ভূমধ্যসাগরে লিবিয়া ও তিউনিশিয়া থেকে ইতালি ও ইউরোপের অন্যান্য অংশের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা অভিবাসনপ্রত্যাশীদের নৌকার সংখ্যা বেড়েছে।

জাতিসংঘের অভিবাসন বিষয়ক আন্তর্জাতিক সংস্থা আইওএমের তথ্য অনুযায়ী, চলতি বছর আফ্রিকা ও মধ্যপ্রাচ্যের দরিদ্র ও যুদ্ধকবলিত দেশগুলো থেকে পালিয়ে আসা এক হাজার ১০০ জনেরও বেশি লোক ভূমধ্যসাগরে ডুবে মারা গেছেন।