দেশে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাযুক্ত নতুন টেলিমেডিসিন সফটওয়্যার ‘এনজাইম’

প্রকাশিত: ১০:৩২ পূর্বাহ্ণ, জুন ৩০, ২০২০

 

বর্তমান করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে টেলিমেডিসিন সফটওয়্যারের চাহিদা বাড়ছে। চিকিৎসকদের প্রয়োজনে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাযুক্ত টেলিমেডিসিন সফটওয়্যার তৈরি করেছে দেশি প্রতিষ্ঠান এনজাইম।

 

এ সফটওয়্যার ব্যবহার করে ভিডিও সাক্ষাতের মাধ্যমে স্বাস্থ্য পরামর্শ ও চিকিৎসা দিতে পারেন চিকিৎসকেরা।
সফটওয়্যারটি ইতোমধ্যে দেশের বাইরেও ব্যবহার শুরু হয়েছে বলে জানান এর উদ্যোক্তারা। এনজাইম নামের সফটওয়্যারটি অ্যাপ ও ওয়েবসাইটের মাধ্যমে চিকিৎসক ও রোগীকে সংযুক্ত করতে পারবে।

এনজাইমের উদ্যোক্তারা বলেন, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা যুক্ত থাকায় নতুন এ সিস্টেম ইন্টারনেট সংযোগ থাকা কম্পিউটারের মাধ্যমে খুব সহজেই ব্যবহার করা যাবে। দুটি আলাদা প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে এনজাইমের পুরো ব্যবস্থা পরিচালিত হয়।চিকিৎসকেরা বিনা মূল্যে নিবন্ধনের মাধ্যমে যুক্ত হয়ে নিজস্ব অনলাইন চেম্বার তৈরি করে অনলাইনে চিকিৎসা কার্যক্রম চালাতে পারবেন। এতে তাঁদের ব্যক্তিগত বৃত্তান্ত, চিকিৎসা প্রদানের সময়, পারিশ্রমিক, চেম্বারের ঠিকানা দেওয়ার সুযোগ রয়েছে। এনজাইম পেশেন্ট কেয়ারে সংরক্ষিত রোগীর তথ্যের সাহায্যে ডাক্তার রোগীর অতীত রোগ বা উপসর্গ কিংবা সামগ্রিক পরিস্থিতি সম্পর্কে আগেই জানতে পারছেন, যা তাকে রোগ নির্ণয় এবং সমাধানে বাড়তি সুবিধা দিতে পারে।

কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা থাকায় নির্দিষ্ট কোনো রোগের জন্য চিকিৎসকের দেওয়া ওষুধ পরবর্তী সময়ে একই উপসর্গের রোগীদের চিকিৎসা প্রদানের সময় ডাক্তারের কাছে পরামর্শ হিসেবে দেখাবে। ব্যবস্থাপত্র লেখার প্রতিটি ধাপে চিকিৎসকদের সহায়তা করবে। এনজাইম ২৫ হাজার ওষুধের তালিকা, পাঁচ শতাধিক রোগের নাম ও লক্ষণ এবং দেড় হাজার ওষুধের জেনেরিক নাম যুক্ত করা হয়েছে। রোগীদের জন্য তৈরি এনজাইম পেশেন্ট কেয়ারের মাধ্যমে চিকিৎসা গ্রহণে ইচ্ছুক সবাই নিজেদের অ্যাকাউন্ট তৈরি করে এই সেবা গ্রহণ করতে পারবেন।

ব্যবহারকারীর চাহিদা ও সময় অনুযায়ী চিকিৎসক নির্বাচন করার জন্য রয়েছে অনলাইন সাক্ষাৎকার সিস্টেম। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে চিকিৎসা নিলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে রোগীর কাছে ডিজিটাল ই-প্রেসক্রিপশন পৌঁছে যাবে।

এনজাইমের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) নাজমুল হাসান বলেন- ‘এনজাইম প্র্যাকটিস স্যুট এবং এনজাইম পেশেন্ট কেয়ার একটি সম্মিলিত সিস্টেম, যেখানে সমন্বিত রয়েছে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা। অর্থাৎ প্ল্যাটফর্মটি আমরা রোগী এবং চিকিৎসক উভয়কেই প্রযুক্তিগত সুবিধা প্রদান করার মাধ্যমে নিজ নিজ চাহিদা, প্রয়োজনীয়তা এবং স্বার্থ রক্ষার একটি মাধ্যম হিসেবে তৈরি করেছি।

করোনাভাইরাসের মতো বৈশ্বিক মহামারীর এই সময়ে টেলিমেডিসিন পরিষেবার গুরুত্ব বাড়ছে। এ ক্ষেত্রে এনজাইম ভূমিকা রাখতে পারবে।

অ্যাপটি পাওয়া যাবে গুগল প্লে স্টোর (https://play.google.com/store/apps/details?id=com.enzaime.patient) থেকে।