টাক মাথায় চুল গজানোর ওষুধ উদ্ভাবন

প্রকাশিত: ১০:১২ পূর্বাহ্ণ, জুন ১৯, ২০২০

 

টাক মাথা নিয়ে মাথা ব্যথা নেই পৃথিবীতে এমন মানুষ পাওয়া কঠিন। তবে টাক মাথার মানুষদের জন্য দারুণ এক সুখবরের দ্বারপ্রান্তে রয়েছেন বিজ্ঞানীরা। গবেষকরা বলছেন, হাড়ক্ষয় রোধের একটি ওষুধ পরীক্ষার সময় তারা দেখতে পেয়েছেন যে এটা চুলের বৃদ্ধিতেও ভালো কাজ করে এই ওষুধ। এটি হয়ে উঠতে পারে চুল পড়া রোধের দারুণ এক সমাধান।

গবেষকরা বলছেন, অস্টিওপোরোসিসের চিকিৎসায় ব্যবহৃত ওষুধ সাইক্লোস্পোরিন নিয়ে ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা করার সময় দেখা গেছে- এটি চুলের গোঁড়ার ওপর ‘নাটকীয় প্রভাব’ ফেলতে সক্ষম এবং চুল বাড়তে উদ্দীপ্ত করতে পারে। প্রকল্পের প্রধান ম্যানচেস্টার বিশ্ববিদ্যালয়ের ড. ন্যাথান হকশ বলেন, যেসব লোকেরা মাথার চুল পড়া সমস্যায় আক্রান্ত তাদের চিকিৎসায় এটা বড় পরিবর্তন নিয়ে আসতে পারে। মানুষের দেহে এমন একটি প্রোটিন রয়েছে যা চুলের বৃদ্ধি রোধ করে দেয়। এই সাইক্লোস্পোরিন মূলত সেই প্রোটিনকেই আক্রমণ করবে।

চুল পড়া চিকিৎসার জন্য বর্তমানে দুটি ওষুধ প্রচলিত রয়েছে। একটি হচ্ছে মিনোক্সিডিল যার পুরুষ ও নারী সবাই ব্যবহার করতে পারে। আর অন্যটি হচ্ছে ফিনাস্টেরাইড যা শুধু পুরুষরাই ব্যবহার করতে পারে। তবে এই দুটি ওষুধেরই কিছু না কিছু পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া রয়েছে। এ কারণে টাক সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে বেশিরভাগ মানুষ চুল প্রতিস্থাপনের দিকে ঝোঁকে।

ড. হকশ বলেন, সাইক্লোস্পোরিন চুল পড়ার চিকিৎসায় কার্যকর এবং পুরোপুরি নিরাপদ কিনা তা নিশ্চিত হতে অধিকতর ক্লিনিক্যাল পরীক্ষার দরকার। তাদের প্রত্যাশা এটি নিরাপদ প্রমাণিত হলে নারী-পুরুষ সবাই ব্যবহার করতে পারবে এই ওষুধ।-বিবিসি।