জেলায় জেলায় যেসব এলাকার ‘লাল অঞ্চলে’ চলছে লকডাউন

প্রকাশিত: ১২:১৫ অপরাহ্ণ, জুন ১৭, ২০২০

করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় দেশের বিভিন্ন জেলায় এলাকাভিত্তিক ‘রেডজোন’ ঘোষণা করে লকডাউন করা হচ্ছে।
গাজীপুর, নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী, চট্টগ্রাম ছাড়াও নতুন করে মাদারীপুর, মুন্সিগঞ্জ, কুমিল্লা, কুষ্টিয়ায় কিছু এলাকাকে স্থানীয় প্রশাসন রেডজোন ঘোষণা করেছে। এসব এলাকায় লকডাউন বাস্তবায়নে প্রস্তুতি নিচ্ছে স্থানীয় প্রশাসন।

লক্ষ্মীপুরের রামগতির আলেকজান্ডার ইউনিয়নকে বাদ দিয়ে রামগতি পৌরসভা, চরগাজী ইউনিয়ন ও বড়খেরি ইউনিয়নকে যুক্ত করে নতুন রেডজোনের তালিকা প্রকাশ করেছে সিভিল সার্জনের কার্যালয়।

রেড জোনগুলো হলো;

রামগতির চর গাজী, বড়খেরি, রামগাতি পৌরসভা; কামালনগরের চর লরেন্স, চর ফ্যালকন, হাজির হাট, তোরাবগঞ্জ, সদর উপজেলার সাউথ হামসাদি, দালাল বাজার, পার্বতি নগর, বাঙ্গাখা, চন্দ্রগঞ্জ, মান্দারি, কুশাখালী, লক্ষ্মীপুর পৌরসভার ১, ২, ৫, ৬, ৭, ১১ ও ১৫ নম্বর ওয়ার্ড।

কুষ্টিয়া জেলায় ১৮টি রেড জোন চিহ্নিত করা হয়েছে

লকডাউন কার্যকর হবে ১৮ই জুন থেকে। রেডজোনগুলো হলো: পৌরসভার ১, ২, ৫, ৬, ৭, ১০, ১৬, ১৮ নম্বর ওয়ার্ড, ভেড়ামারা পৌরসভার ১, ২, ৩, ৪, ৬, ৮ ও ৯ নম্বর ওয়ার্ড এবং ভেড়ামারার বাহিরচর ও চাঁদগ্রাম ইউনিয়ন ও সদরের হরিপুর।

মুন্সিগঞ্জ-

মুন্সিগঞ্জ শহরের শুধু মাঠপাড়া এলাকাকে রেডজোন হিসেবে চিহ্নিত করেছে প্রশাসন। ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হবে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।

মাদারীপুর-

মাদারীপুরের ৪টি পৌরসভার ২১টি ওয়ার্ড ও ৪টি উপজেলার ২২টি ইউনিয়নকে রেডজোন ঘোষণা করা হয়েছে। ১৮ই জুন ভোর ৬টা থেকে কার্যকর হবে লকডাউন।

কুমিল্লা-

কুমিল্লা নগরীর ৩, ১০, ১২, ১৩ নম্বর ওয়ার্ড আগামী ১৯শে জুন থেকে ৩রা জুলাই পর্যন্ত লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।

নোয়াখালী-

নোয়াখালীতে ২টি রেডজোন চিহ্নিত করে সদর, বেগমগঞ্জে লকডাউন চলছে। আর কোম্পানিগঞ্জে মঙ্গলবার সকাল থেকে লকডাউন শুরু হয়েছে।

ফরিদপুর-

ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলায় দ্বিতীয় দফায় ১৫ দিনের জন্য লকডাউন ঘোষণা করেছে প্রশাসন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার ৪, ৫, ৮ নম্বর ওয়ার্ডে লকডাউন চলছে; ১০ই জুন থেকে লকডাউন চলছে বান্দরবান সদর ও রুমা উপজেলায়।

নারায়ণগঞ্জে কোনো রেডজোন ঘোষণা করা হয়নি; রূপগঞ্জ সদর ইউনিয়নে শনিবার থেকে চলছে লকডাউন।

এছাড়া, নরসিংদী সদর, মাধবদী, পলাশ থানা রেডজোন চিহ্নিত করা হয়েছে। আর ষষ্ঠদিনের মতো লকডাউন চলছে শুধু মাধবদী পৌরসভার ৪ ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডে।

বন্দর নগরী চট্টগ্রাম-

চট্টগ্রাম মহানগরীর ১০টি এলাকা রেডজোন চিহ্নিত করা হয়েছে। আর গতকাল মধ্যরাত থেকে নগরীর ১০ নম্বর উত্তর কাট্টলী ওয়ার্ড এলাকায় লকডাউন কার্যকর হয়েছে।

এছাড়া, দেশের প্রথম রেডজোন কক্সবাজার পৌর এলাকায় চলছে লকডাউন।

ঢাকা জেলার কেরাণীগঞ্জের ৭টি ইউনিয়নকে রেড জোন ঘোষণা করে লকডাউন চলছে। ৩০শে জুন পর্যন্ত এসব এলাকায় সাধারণ ছুটিও ঘোষণা করা হয়েছে।