আবারো সক্রিয় হয়ে উঠছে পাড়া-মহল্লায় অপরাধী কিশোর গ্যাং।

প্রকাশিত: ৫:০৩ অপরাহ্ণ, মে ২৮, ২০২০

বরগুনায় আবারো সক্রিয় হয়ে উঠেছে পাড়া-মহল্লায় অপরাধী কিশোর গ্যাং। ২০১৯ সালের ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজ গেটের সামনে দিনের আলোতে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয় রিফাত শরীফ নামের এক শিক্ষার্থীকে। আলোচিত এই হত্যাকাণ্ডের ১১ মাসের ব্যাবধানে ঈদের দিন প্রকাশ্যে পিটিয়ে হত্যা করা হলো দিনমজুর পিতার সন্তান হৃদয়কে (১৬)। ঈদ-উল-ফিতরের দিন (২৫ মে) হত্যা ঘটনায় গ্রেফতারকৃত ৭ জনই কিশোর।

হৃদয় হত্যা ঘটনার পর মঙ্গলবার রাত ১১ টায় হঠাৎ করে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ের আয়োজন করা হয়।
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শাহজাহান লিখিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করেন, নদীর পাড়ে ঘুরতে গিয়ে নোমান কাজী (১৮) ও নয়ন (১৭) তাদের সঙ্গীয় বন্ধুদের সাথে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মারামারির ঘটনায় রিদয় (১৬) আহত হয়। পরে বরিশালে চিকিৎসাধীন অবস্হায় রিদয় মারা যায়।

রিদয়ের মা ফিরোজা বেগম বাদী হয়ে মামলা দায়ের করলে পুলিশ ৭ জনকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে, নোমান (১৮), হেলাল মৃধা, রানা(১৭), ইমন (১৮) সাগর (১৬) হেলাল-২ ও শফিকুল ইসলাম।

এদিকে ময়না তদন্ত শেষে রিদয়ের মৃতদেহ আজ বরগুনায় গ্রামের বাড়ি বড় লবনগোলা গ্রামে জানাজা শেষে পারিবারিক গোরস্থানে দাফন করা হবে বলে জানিয়েছেন রিদয়ের বাবা দেলোয়ার হোসেন।

তথ্যসূত্রঃ বিডি প্রতিদিন